কালের কাগজ ডেস্ক: ০৮ নভেম্বর ,বৃহস্পতিবার ।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এমপিওভুক্ত বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মচারীদের জন্য বৈশাখী ভাতা ও বার্ষিক পাঁচ শতাংশ ইনক্রিমেন্ট ঘোষণা দিয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় গণভবনে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন নয়টি সংস্থা ও ট্রাস্টের মধ্যে একশ’ কোটি টাকার চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে এ ঘোষণা দেন।

প্রধানমন্ত্রীর এ ঘোষণার ফলে এমপিওভুক্ত স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসার প্রায় পাঁচ লাখ শিক্ষক ও কর্মচারী এ সুবিধা পাবেন।

সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানান, এই ইনক্রিমেন্টের জন্য বাড়তি প্রায় ৫৩২ কোটি টাকা লাগবে। আর বৈশাখী ভাতার জন্য লাগবে ১৭৭ কোটি টাকার বেশি।

তারা জানান, অর্থ বিভাগ ২০১৮-১৯ অর্থবছরে এ জন্য প্রয়োজনীয় তহবিল বরাদ্দ দিয়েছে।

এদিকে শেখ হাসিনা বিভিন্ন ট্রাস্ট ফান্ড ও সংস্থার মাঝে একশ’ কোটি টাকার চেক হস্তান্তর করেন।

তিনি বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী কল্যাণ তহবিল ও বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী অবসর ভাতা বোর্ডকে ১০ কোটি টাকা করে অনুদান দেন। এছাড়া ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স কল্যাণ ট্রাস্ট এবং সংস্কৃতিসেবী কল্যাণ তহবিলকে ২০ কোটি টাকা করে অনুদান দেন।

একই অনুষ্ঠানে তিনি বঙ্গবন্ধু জাতীয় কৃষি পুরস্কার ট্রাস্ট, বঙ্গবন্ধু বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ফেলোশিপ ট্রাস্ট, বঙ্গবন্ধু ক্রীড়াসেবী ফাউন্ডেশনকে ১০ কোটি টাকা করে অনুদান দেন।

এছাড়া নিউরো-ডেভেলপমেন্ট প্রতিবন্ধী সুরক্ষা ট্রাস্ট এবং ইমাম ও মুয়াজ্জিন কল্যাণ ট্রাস্টকে প্রধানমন্ত্রী পাঁচ কোটি করে অনুদান দেন।

অন্যদের মধ্যে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী, সমাজ কল্যাণ মন্ত্রী রাশেদ খান মেনন, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান, সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী ড. বীরেন শিকদার, উপমন্ত্রী আরিফ খান জয় এবং প্রধানমন্ত্রীর মূখ্য সচিব নজিবুর রহমান অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

কালের কাগজ/প্রতিবেদক/জা.উ.ভি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *