আদালত অবমাননা করলেন বিএনপি নেতা আমীর খসরু, শাস্তি চান বিশেষজ্ঞরা

editor ৭ই কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ জাতীয়

কালের কাগজ ডেস্ক:১৪ মে-২১৯,মঙ্গলবার।

‘কোর্ট এখন জেলখানার পিছে ঘুরছে’ বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী। মঙ্গলবার (১৪ মে) তিনি অবহেলার সুরে বলেছেন, `কোর্ট যদি জেলখানায় ঘুরে বেড়ায় সেখানে জনগণের ন্যায়বিচারের প্রত্যাশা পূরণ হয় না এবং কোর্টের উদ্দেশ্য নিয়ে প্রশ্ন ওঠে’।

রাজনৈতিক স্বার্থ উদ্ধার না হওয়ায় আদালতের মতো সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানকে প্রশ্নবিদ্ধ করার চেষ্টা করছেন আমীর খসরু, এমন সমালোচনা চলছে রাজনৈতিক মহলে। জাতীয় আস্থা ও নির্ভরতার জায়গাগুলোকে অযৌক্তিক প্রশ্নবাণে বিদ্ধ করে বিএনপি নেতারা দেশে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির যে পাঁয়তারা করছেন সেটি পূরণ হবে না বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

আমীর খসরু রাজনৈতিক উদ্দেশ্য পূরণের জন্যই আদালত অবমাননা করেছেন বলে মনে করেন স্থানীয় সরকার বিশেষজ্ঞ ড. তোফায়েল আহমেদ। তিনি বলেন, বিচার বিভাগকে প্রশ্নবিদ্ধ করার অপচেষ্টায় কেউ সফল হবে না। কারণ, বিচার বিভাগ স্বাধীন একটি সত্ত্বা, যা নির্দিষ্ট আদর্শে পরিচালিত হয়। বেগম জিয়াকে ইচ্ছা করে আটকে রাখেননি আদালত। তিনি তার অপকর্মের কারণে আজকে সাজা ভোগ করছেন।

তিনি আরো বলেন, আমীর খসরু একজন সাবেক মন্ত্রী। তার মতো মানুষ কোন উদ্দেশ্যে আদালত অবমাননা করেছেন, সেটি দেশবাসী জানে। আদালত অবমাননা করা একটি শাস্তিযোগ্য অপরাধ। তিনি জনগণের আদালতকে রাজনৈতিক আদালত হিসেবে অপব্যাখ্যা করার চেষ্টা করেছেন। বিরোধী দল দেশের সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে প্রশ্নবিদ্ধ করে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির পাঁয়তারা করছে। তাদের এই প্রয়াস রুখে দিতে হবে। আমীর খসরুদের মতো আইনের প্রতি অশ্রদ্ধাকারীদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত পদক্ষেপ নেয়ার জন্য আমি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি

সম্প্রতি সংবাদ