ব্রেকিং নিউজ

জনগণ বুঝে গেছে কাকে ভোট দিলে নগরের উন্নয়ন হবে: আতিকুল

editor ৬ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ breaking জাতীয়

কালের কাগজ ডেস্ক:৩১ জানুয়ারি ২০২০, শুক্রবার।

কয়েকটি ছোটখাটো ঘটনা ছাড়া ভোটের পরিবেশ উৎসবমুখর আছে বলে মনে মন্তব্য করেছেন ঢাকা উত্তর সিটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী আতিকুল ইসলাম।

তিনি বলেন, ঢাকায় কোটি কোটি লোকের বসবাস। এখানে কিছু কিছু ঘটনা ঘটতে পারে। এরপরও সার্বিক সুন্দর পরিস্থিতি বিরাজ করছে।

শুক্রবার বাদ জুমা বনানী জামে মসজিদের সামনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি এসব কথা বলেন। এ সময় তিনি উৎসবমুখর পরিবেশে নির্বাচনে অংশ নিতে সবাইকে আহ্বান জানান।

আতিক বলেন, একটি ভোট খুবই গুরুত্বপূর্ণ। সবাই যেন সুশৃঙ্খল ও শান্তিপূর্ণভাবে ভোট দিতে পারে সেজন্য সবাইকে অনুরোধ করব। আমি আমার আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু, সবাইকে ভোট দিতে আসতে বলেছি।

ঢাকার দুই সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন নিয়ে জরিপ করেছেন প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযুক্তি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়। এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী বলেন, গতকাল (বৃহস্পতিবার) রাতে আমি জরিপটি দেখেছি। আমরা গত ১০ তারিখ থেকে নির্বাচনী গণসংযোগ ও প্রচার করেছি। সেখানে দল-মত-নির্বিশেষে সবার উপস্থিতি ছিল। মা-বোনেরা বিজয় সূচক চিহ্ন দেখিয়েছেন। আমরা মাঠপর্যায়ে প্রচারে অংশ নিয়ে যা দেখেছি আর তরুণদের উচ্ছ্বাসের সঙ্গে জরিপ মিলে গেছে।

নির্বাচনে বিজয়ের আশাবাদের কথা জানিয়ে আতিক বলেন যেখানেই পথসভা হয়েছে সেগুলো জনসভায়, আর জনসভা জনসমুদ্রে পরিণত হয়েছে। নৌকার প্রতি মানুষের ভালোবাসা দেখেছি। আমরা শতভাগ বিশ্বাসী। অবশ্যই জয়ী আমরা হবই হব।

তিনি বলেন, প্রচারে পুরো সময়টাই দলের নেতাকর্মী ও সমর্থকেরা রাস্তায় ছিলেন। আমরা সবাই ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গিয়েছি। গণসংযোগে মানুষের জোয়ার দেখে আমরা বুঝতে পেরেছি নৌকা প্রতীকের অবস্থান খুবই ভালো। জনগণ বুঝে গেছে কাকে ভোট দিলে নগরের উন্নয়ন হবে।

এদিকে বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে সিটি নির্বাচনের আনুষ্ঠানিক প্রচার শেষ হয়েছে। শুক্রবার নির্বাচনের আগের দিন প্রচারে অংশ না নিলেও ব্যস্ত সময় পার করেছেন আতিকুল ইসলাম। সকাল সাড়ে ১১টার দিকে আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও ঢাকা উত্তর সিটি নির্বাচনের সমন্বয়ক তোফায়েল আহমেদের বনানীর বাসায় যান আতিকুল ইসলাম।

এ সময় তোফায়েল আহমেদ সাংবাদিকদের বলেন, নির্বাচন কমিশন যাতে সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন সম্পন্ন করতে পারে সে ব্যাপারে সহযোগিতা করবে আওয়ামী লীগ।

আতিকুল ইসলাম বলেন, আমাদের সার্বিক প্রস্তুতি শেষ হয়েছে। আওয়ামী লীগ ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি শেখ বজলুর রহমান পোলিং এজেন্টদের কাগজপত্র স্বাক্ষর করে এবং প্রয়োজনীয় কাগজ কলম দিয়ে প্রস্তুত করছেন।

সেখান থেকে গিয়ে আতিকুল ইসলাম জুমার নামাজ আদায় করেছেন বনানী কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে। এ সময় তার সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল ইসলাম খান, এফবিসিসিআইয়ের সাবেক সভাপতি শফিউল আলম মহিউদ্দিন, বিজিএমইএর সাবেক সভাপতি সিদ্দিকুর রহমানসহ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা।

জুমার নামাজ আদায় শেষে আতিক বনানী কবরস্থানে যান। সেখানে তার মা-বাবার কবর জিয়ারত করেন আওয়ামী লীগের এই মেয়র প্রার্থী। পাশাপাশি ঢাকা উত্তরের সাবেক মেয়র আনিসুল হকের কবরও জিয়ারত করেন। বিকালে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরকে দেখতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে যান আতিকুল।