ব্রেকিং নিউজ

গোয়ালন্দ উপজেলার প্রথম মহিলা শিক্ষক, সাংবাদিক আজু শিকদারের মায়ের মৃত্যু

editor ১৮ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ সারাদেশ

শরিফুল ইসলাম, গোয়ালন্দ (রাজবাড়ী) প্রতিনিধি:২৬ আগস্ট-
গোয়ালন্দ উপজেলার প্রথম মহিলা শিক্ষক, গোয়ালন্দ প্রেসক্লাবের সভাপতি আজু শিকদারের মা মমতাজ বেগম (৬৬) মঙ্গলবার বেলা ৩টায় তাঁর নিজ বাড়ীতে ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তিনি উপজেলার ছোটভাকলা ইউনিয়নের হাউলি কেউটিল গ্রামের মরহুম আঃ আজিজ শিকদারের (মাস্টার) স্ত্রী। তিনি দুই ছেলে, এক মেয়ে, নাতী-নাতনি, আত্মীয়-স্বজন ও অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে যান।
মঙ্গলবার বাদ এশা নামাজে জানাযা শেষে তাঁকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তিনি উপজেলার প্রথম মহিলা শিক্ষক এবং একজন আদর্শ গর্বিত মা হিসেবে ২০১৫ সালে উপজেলা পর্যায়ে সম্মাননা লাভ করেন।
মরহুমার পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, তিনি বেশ কিছুদিন ধরে শারীরিক নানা জটিলতায় ভুগছিলেন। এ অবস্থায় এক সপ্তাহ আগে তাঁকে ফরিদপুরের একটি প্রাইভেট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর শরীরে করোনার উপসর্গ দেখা দিলে নমুনা পরীক্ষায় সোমবার করোনা পজিটিভ আসে। এ অবস্থায় তাঁর একান্ত অনুরোধে ওই দিনই তাঁকে বাড়ীতে নিয়ে এসে চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্র অনুযায়ী চিকিৎসা চলছিল। মঙ্গলবার দুপুরের দিকে তাঁর অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেয়ার প্রস্তুতি চলছিল। এ লক্ষ্যে বেলা ৩টার দিকে তাঁকে নেয়ার জন্য বাড়ীতে এ্যাম্বুলেন্স পৌছালেও ওই সময় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।
মরহুমার বড় ছেলে বিশিষ্ট লেখক রাজু শিকদার জানান, তার মা ১৯৭২ সালে গোয়ালন্দ উপজেলার প্রথম মহিলা শিক্ষক হিসেবে বালিয়াকান্দি প্রাইমারি স্কুলে যোগদান করেন। ২০১৩ সালে হাউলি কেউটিল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে অবসর গ্রহন করেন। আমি আমাদের মায়ের জন্য সকলের কাছে দোয়া কামনা করছি।

 

সম্প্রতি সংবাদ