ব্রেকিং নিউজ

সৈয়দপুরের চাঞ্চল্যকর শিশু ধর্ষণ মামলার আসামীমনি আশরাফী র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার

editor ১০ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ সারাদেশ

শাহজাহান আলী মনন, সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি \২৭ আগস্ট-২০২০
নীলফামারীর সৈয়দপুর শহরের চাঞ্চল্যকার শিশু ধর্ষণ মামলার অন্যতম আসামী ধর্ষক এরশাদের ভাবী ও ধর্ষনে সহায়তাকারী মোছাঃ মনি আশরাফি (৩০) কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। ২৬ আগস্ট দিবাগত রাত আনুমানিক সাড়ে ১০ টার দিকে দিনাজপুর জেলার চিরিরবন্দর শহরের মাস্টারপাড়া থেকে তাকে গ্রেফতার করা সম্ভব হয়েছে। নীলফামারী র‌্যাব ক্যাম্পের একটি অভিযানিক দল অভিযান পরিচালনা করে তাকে গ্রেফতার করে। সে সৈয়দপুর উপজেলা শহরের পৌর ৫ নং ওয়ার্ডের মুন্সিপাড়া মহল্লার মোঃ নওশাদ এর স্ত্রী।
তার বিরুদ্ধে গত ২ আগস্ট দুপুর আনুমানিক ১২ টার সময় সৈয়দপুর পৌরসভাধীন মুন্সিপাড়ায় ৭ বছরের শিশুকে ধর্ষণে তার দেবর এরশাদ (৩০) কে সহায়তার অভিযোগ রয়েছে। এ ঘটনায় ধর্ষনের শিকার শিশুটির মা মোছাঃ আসমা বেগম (২৫) সৈয়দপুর থানায় গত ১৯ আগস্ট ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। মামলা হওয়ার পর থেকে আসামী মনি আশরাফী পলাতক ছিলো। মামলার প্রধান আসামী এরশাদ এখনও পলাতক রয়েছে।
র‌্যাব-১৩, সিপিসি-২, নীলফামারী র‌্যাব ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত কোম্পানী কমান্ডার সহকারী পুলিশ সুপার আ ন ম ইমরান খান জানান, র‌্যাব প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে সমাজের বিভিন্ন অপরাধ এর উৎস উদ্ঘাটন, জঙ্গীবাদ দমন, অপরাধীদের গ্রেফতারসহ আইনশৃংখলার সামগ্রিক উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। র‌্যাব শুরু থেকে যে কোন ধরণের অপরাধী, অপহরণ, মাদক উদ্ধার, অপহৃত ভিকটিম উদ্ধার, খাদ্যে ভেজাল বিরোধী অভিযান, ভেজাল ঔষধ প্রস্তুতকারক ও ব্যবসায়ী এবং বিভিন্ন প্রতারক চক্রকে গ্রেফতারসহ দেশের শীর্ষ সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করতে সার্বক্ষণিকভাবে অভিযান পরিচালনা করে থাকে। এরই অংশ হিসেবে আসামী মনি আশরাফীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এরশাদকেও গ্রেফতারে প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। আসামীকে সৈয়দপুর থানায় হস্তান্তর করা হয়।
সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবুল হাসনাত খান জানান, বৃহস্পতিবার সকালে আসামী মনি আশরাফীকে নীলফামারী জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

সম্প্রতি সংবাদ