ব্রেকিং নিউজ

পাংশায় প্রণোদনা কর্মসূচিতে কৃষকের মাঝে ধানের চারা বিতরণ

editor ৫ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ সারাদেশ

মোক্তার হোসেন, পাংশা (রাজবাড়ী) প্রতিনিধি :৩১ আগস্ট-২০২০,সোমবার।

রাজবাড়ী জেলার পাংশা উপজেলায় সোমবার দুপুরে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উদ্যোগে ২০২০-২১ অর্থবছরে প্রণোদনা কর্মসূচির আওতায় খরিপ মৌসুমে বন্যার ক্ষয়ক্ষতি পুষিয়ে নিতে ক্ষতিগ্রস্ত ৬৭জন প্রান্তিক ও ক্ষুদ্র কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে নাবীরোপা আমন ধানের চারা বিতরণ করা হয়েছে।
পাংশা উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ জেসমিন আকতারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নবাগত পাংশা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিপুল চন্দ্র দাস। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে পাংশা উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জালাল উদ্দিন বিশ্বাস, পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মাছপাড়া ইউপির চেয়ারম্যান খোন্দকার সাইফুল ইসলাম (বুড়ো) উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে যুব উন্নয়ন অফিসার শ্যামল কুমার বিশ্বাস, নির্বাচন অফিসার মো. আ. আলীম, পরিসংখ্যান অফিসার মাহবুব হোসেন, কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার কাজী এজাজুল করীম ও সহকারী কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা বদরুল আলম মিয়া প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন। উপস্থাপনা করেন উপসহকারী উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা মো. রোকনুজ্জামান।
কৃষি অফিসার কৃষিবিদ জেসমিন আকতার বলেন, বর্তমান সরকার কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নে নানামুখী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেন। এবারে কৃষকদের প্রণোদনা কর্মসূচীর আওতায় খরিপ মৌসুমে বন্যার ক্ষয়ক্ষতি পুষিয়ে নিতে ক্ষতিগ্রস্ত ৬৭জন প্রান্তিক ও ক্ষুদ্র কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে নাবীরোপা আমন ধানের চারা বিতরণের কর্মসূচী গ্রহণ করা হয়েছে। প্রথমে বীজতলা তৈরী করে সেখান থেকে চারা সংগ্রহ করে কৃষকদের মাঝে বিতরণ করা হচ্ছে। কর্মসূচী সফলভাবে বাস্তবায়নে সংশ্লিষ্ট সকলের আন্তরিক ধন্যবাদ জানান তিনি।
প্রধান অতিথি ইউএনও বিপুল চন্দ্র দাস বলেন, বর্তমান কৃষিবান্ধব সরকারের যুগোপযোগী সিদ্ধান্তের ফলে কৃষি ক্ষেত্রে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। দেশ খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জন করেছে। এক্ষেত্রে কৃষি দপ্তরের অবদান রয়েছে। এর ধারাবাহিকতা রক্ষায় সংশ্লিষ্ট সকলের দায়িত্বশীল ভাবে কাজ করার গুরুত্বারোপ করেন তিনি। অনুষ্ঠানে উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা, কৃষি দপ্তরের উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তাবৃন্দ ও স্থানীয় বিভিন্ন শ্রেণি পেশার বিশিষ্ট ব্যক্তিগণ উপস্থিত ছিলেন।

সম্প্রতি সংবাদ