ব্রেকিং নিউজ

ফরিদপুরে গৃহবধূকে হত্যা করে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেয়ার অভিযোগ

editor ৫ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ সারাদেশ

কামরুল হাসান জুয়েল, ফরিদপুর থেকে:২৩ সেপ্টেম্বর২০২০,বুধবার।

ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলা আজিমনগর ইউনিয়নের ব্রাহ্মণপাড়া গ্রামে বুধবার দুপুরে জেসমিন বেগম (২৫) নামে এক গৃহবধূর লাশ তার স্বামী রুবেল মুন্সির বাড়ি থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহতের পরিবারের দাবি, হত্যার পর লাশ ঝুলিয়ে রাখা হয়। এ ঘটনায় নিহতের চাচা সূর্য মিয়া বাদী হয়ে ইউডি মামলা ও বাবা হত্যার অভিযোগ দিয়েছে। হত জেসমিনের বাবার নাম ফারুক শেখ। বাড়ি একই উপজেলার কালামৃধা ইউনিয়নের দোলকুন্দি গ্রামে। ঘটনার তদন্তকারী পুলিশ কর্মকর্তা এসআই আবুল বাশার বলেন, মঙ্গলবার রাতে ওই গৃহবধূ দোতলা ভবনের একটি কক্ষে সিলিং ফ্যানের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে বলে স্বামীর পরিবারের পক্ষ হতে বলা হচ্ছে। খবর পেয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। প্রতিবেদন পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। এদিকে, জেসমিনের বাবা ফারুক শেখ অভিযোগ করেন, পাঁচ বছর আগে তার মেয়ের বিয়ে হয়। এখনো তাদের কোনো সন্তানাদি হয়নি। মেয়েটি শিক্ষিত কিন্তু জামাই অশিক্ষিত বেকার জানিয়ে তিনি বলেন, নেশাগ্রস্ত জামাই রুবেল মোবাইল প্রতারক ওয়েলকাম পার্টির সাথে জড়িত। আমার মেয়ে তাকে ভালো পথে আনতে বহু চেষ্টা করছে। এ নিয়ে মাঝে মধ্যে জেসমিনকে রুবেল মারধর করত। মঙ্গলবার রাতে জেসমিনের মোবাইলটি আছাড় দিয়ে ভেঙ্গে ফেলে এবং জেসমিনকে গলাটিপে মেরে ঝুলিয়ে রাখে। এ খবর আমরা ওই এলাকা থেকে পেয়েছি। পরে আমি থানায় হত্যা মামলার অভিযোগ দিয়েছি

সম্প্রতি সংবাদ