ব্রেকিং নিউজ

সৈয়দপুর মহানবীর ব্যাঙ্গচিত্র প্রকাশের প্রতিবাদে ও ফ্রান্সের পন্য নিষিদ্ধের দাবীতে বিক্ষোভ মিছিল ও কুশপুত্তলিকা দাহ

editor ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ সারাদেশ

শাহজাহান আলী মনন, নীলফামারী জেলা প্রতিনিধিঃ ৩১ অক্টোবর-২০২০
সাময়িকী শার্লি হেবদো তে মহামবী (সাঃ) এর ব্যাঙ্গচিত্র প্রকাশ এবং ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রো কর্তৃক সেই ব্যাঙ্গচিত্র সরকারী পৃষ্টপোষকতায় বহুতল ভবনের দেয়ালে প্রদর্শনের প্রতিবাদে এবং বাংলাদেশে ফ্রান্সের সকল পন্য নিষিদ্ধের দাবীতে নীলফামারীর সৈয়দপুরে বিক্ষোভ মিছিল ও ম্যাক্রোর কুশ পুত্তলিকা দাহ করা হয়েছে। ৩১ অক্টোবর শনিবার দুপুর “শানে রেসালাত (সাঃ) সংরক্ষন কমিটির ব্যানারে এটি আয়োজন করা হয়। শহরের প্রাচীন বিদ্যাপীঠ সৈয়দপুর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে বাদ নামাযে জোহর বিভিন্ন মসজিদ ও মাদরাসা থেকে মুসল্লীরাসহ সর্বস্তরের মুসলমানরা সমবেত হয়ে বিক্ষোভ মিছিল বের করে। বঙ্গবন্ধু সড়ক হয়ে শেরে বাংলা সড়ক, শহীদ ডাঃ জিকরুল হক সড়ক প্রদক্ষিণ করে হাজার হাজার মানুষের মিছিলটি মাওলানা ভাসানী চত্বরে এসে প্রতিবাদ সমাবেশ করে। এখানে বক্তব্য রাখেন ইসলামী আন্দোলন সৈয়দপুর উপজেলা সভাপতি মাওলানা ছদর উদ্দীন, সাধারণ সম্পাদক হাফেজ নুরুল হুদা, প্রবীন ইসলামী ব্যাক্তিত্ব মাওলানা হারুন রিয়াজী, মাওলানা রফিকুল ইসলাম, মাওলানা সাখাওয়াত হোসেন, মাওলানা জিল্লুর রহমান প্রমুখ।
সমাবেশে বক্তারা মহানবীর অবমাননাকারী ম্যাক্রোসহ শার্লি হেবদো পত্রিকা কর্তৃপক্ষকে অবিলম্বে ক্ষমা চাইতে বলেন। সে সাথে যারা দেশের মধ্যেও নানাভাবে ইসলাম, কোরআন ও মহানবী সম্পর্কে কুটুক্তি ও অবমাননাকর মন্তব্য করছেন তাদেরও বিচার দাবী করেন। বক্তারা সরকারের প্রতি ফ্রান্সের সকল পন্য নিষিদ্ধের ঘোষনা দেয়ার সাথে রাষ্ট্রীয়ভাবে ফ্রান্সের সরকারের প্রতি নিন্দা জানানোরও দাবী জানান। তারা বলেন, মুসলমানদের রক্তে আগুন লাগিয়েছে মহানবীকে অবমাননাকারীরা। অনতিবিলম্ব এ ঘৃন্য কাজ ঘেকে ফিরে এসে ক্ষমা প্রার্থনা না করলে আরও কঠোর আন্দোলন করা হবে। প্রয়োজনে অস্ত্র হাতে তুলে নিয়ে জীবন দিতেও প্রস্তুত রয়েছে সকল মুসলমান। শেষে ম্যাক্রোর কুশ পুত্তলিকায় আগুন ধরিয়ে দিয়ে স্লোগানে মুখর হয়ে উঠে পুরো শহর। এসময় উপস্থিতরা নানাভাবে তাদের ক্ষোভ ও ঘৃনা প্রকাশ করে। (ছবি আছ)
 

সম্প্রতি সংবাদ