ব্রেকিং নিউজ

জয়ের পথে বাইডেন, নিরাপত্তা জোরদার

editor ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ breaking আন্তর্জাতিক

কালের কাগজ  ডেস্ক: ০৭ নভেম্বর ২০২০,

সবচেয়ে বড় গণতান্ত্রিক দেশ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষমতা কার দখলে যাচ্ছে সেটার ইঙ্গিত এখন সুস্পষ্ট। ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেন জয়ের কাছাকাছি পৌঁছে গেছেন। প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ অঙ্গরাজ্য জর্জিয়ার পর পেনসিলভেনিয়ায়ও এগিয়ে গেলেন জো বাইডেন। এতে তার প্রেসিডেন্ট হওয়া এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র।

ইতিমধ্যে জোরদার করা হয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষমতাধর রাষ্ট্রটির হবু প্রেসিডেন্টের নিরাপত্তা। এতে হোয়াইট হাউজ জো বাইডেনের দখলে যাচ্ছে সেটা অনেকটা পরিষ্কার। ফলে ডেমোক্র্যাটরা মেতে উঠছে উল্লাসে আর হতাশা দেখা দিয়েছে রিপাবলিকান শিবিরে।

এখন পর্যন্ত ২৬৪টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট পেয়ে এগিয়ে আছেন জো বাইডেন। অন্যদিকে ট্রাম্প পেয়েছেন ২১৪টি ভোট। ফলে আর মাত্র ছয়টি ইলেকটোরাল ভোট পেলেই আমেরিকার ৪৬তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত হবেন জো বাইডেন। যে কয়েকটি অঙ্গরাজ্যে বাইডেন এগিয়ে আছেন এর একটিতে বিজয়ী হলেই নিশ্চিত হবে তার হোয়াইট হাউজে যাওয়া।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হতে মোট ৫৩৮টি ইলেকটোরাল ভোটের মধ্যে অন্তত ২৭০টি নিশ্চিত করতে হয়।

ফক্স নিউজ বলছে, পেনসিলভেনিয়ায় ৪৯.৫ শতাংশ ভোট পেয়ে এগিয়ে আছে বাইডেনের গাধা। অন্যদিকে ৪৯.৪ শতাংশ ভোট পেয়ে পিছিয়ে আছে ট্রাম্পের হাতি।

সংখ্যার বিচারে ৩২ লাখ ৯৫ হাজার ৩১৯ হাজার ভোট পেয়েছেন বাইডেন। অন্যদিকে ৩২ লাখ ৮৯ হাজার ৭২৫ ভোট পেয়ে পিছিয়ে ট্রাম্প। রাজ্যটিতে ৯৮ শতাংশ ভোট গণনা শেষ হয়েছে।

এর আগে মার্কিন গণমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্টের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ট্রাম্পের জয়ের সম্ভাবনা থাকা জর্জিয়াতে ৯১৭ ভোটে এগিয়ে আছেন বাইডেন। ইতিমধ্যে রাজ্যটিতে ৯৯ শতাংশ ভোট গণনা শেষ হয়েছে বলে জানিয়েছে সংবাদ মাধ্যমটি। রাজ্যটিতে ১৬টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট রয়েছে।

রাজ্যটিতে বাইডেন ৪৯.৩৯ ভোট পেয়ে এগিয়ে আছেন। বিপরীতে ট্রাম্প পেয়েছেন ৪৯.৩৭ শতাংশ ভোট। সংখ্যার বিচারে বাইডেনের ভোটের সংখ্যা দুই কোটি ৪৪ লাখ নয় হাজার ৩৭১। আর ট্রাম্প পেয়েছেন দুই কোটি ৪৪ লাখ আট হাজার ৪৫৪ ভোট।

ঝুলে থাকা নেভাদা রাজ্যেও ৪৯.৪ শতাংশ ভোট পেয়ে এগিয়ে বাইডেন। অন্যদিকে ট্রাম্পের হাতি মার্কা পেয়েছেন ৪৮.৫ শতাংশ ভোট। এই রাজ্যে ছয়টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট আছে।

নির্বাচনের পর থেকেই পেনসিনভেনিয়া ও জর্জিয়াতে বিপুল ভোটে ট্রাম্প এগিয়ে থাকলেও পরবর্তী সময়ে ডাকযোগে ভোট যোগ হওয়ায় রাজ্যগুলোতে এগিয়ে যান ডেমোক্র্যাটের জো বাইডেন।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প যদি পুনঃনির্বাচিত হতে চান পেনসিলভানিয়া ও জর্জিয়া- দুটিতেই জয়লাভ করা খুব গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু এখন দুটি রাজ্যেই জো বাইডেন এগিয়ে যাওয়ার পর প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের জয়লাভের পথ একেবারেই আটকে গেছে বলে মনে করা হচ্ছে।

এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ের দুয়ারে থাকা ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেনের নিরাপত্তা জোরদার করেছে দেশটির গোয়েন্দা সংস্থা। একই সঙ্গে বাইডেনের বাসভবন ও এর আশেপাশের এলাকায় বিমান উড্ডয়ন নিষিদ্ধ করেছে মার্কিন ফেডারেল বিমান উড্ডয়ন কর্তৃপক্ষ।

শুক্রবার রাতে নিজেকে বিজয়ী ঘোষণা করে ভাষণ দিতে পারেন বাইডেন। সম্ভাব্য প্রেসিডেন্টের এমন খবরে তার নিরাপত্তা জোরদারের ব্যবস্থা নিয়েছে দেশটির গোয়েন্দা বাহিনী।

মার্কিন প্রভাবশালী দৈনিক ওয়াশিংটন পোস্ট শুক্রবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

জো বাইডেনের সম্ভাব্য জয়কে চ্যালেঞ্জ করার ঘোষণা দিয়েছে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রচারণা শিবির। স্থানীয় সময় শুক্রবার (০৬ নভেম্বর) সকালে এক বিবৃতিতে ট্রাম্পের প্রচারণা শিবির স্পষ্ট করে জানায়, তারা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা চালিয়ে যাবে। বাইডেনকে সম্ভাব্য বিজয়ী ঘোষণার প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ ভুয়া। বর্তমান ফলাফল চূড়ান্ত বিজয় থেকে বহু দূরে।

ট্রাম্পের প্রচারণা শিবিরের কনসাল জেনারেল ম্যাট মরগান বিবৃতিতে বলেন, নির্বাচন শেষ হয়নি। যে চারটি রাজ্যের ফলাফলের ভিত্তিতে বাইডেনকে সম্ভাব্য বিজয়ী হিসেবে ঘোষণা করা হচ্ছে, সেটা সম্পূর্ণ ভুয়া। কারণ ওই চার রাজ্যের চূড়ান্ত ফলাফল পেতে অনেক সময় লাগবে।

সম্প্রতি সংবাদ