ব্রেকিং নিউজ

সৈয়দপুরে ছেলেকে পিটিয়ে হত্যার দায়ে বাবা গ্রেফতার 

editor ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ সারাদেশ

শাহজাহান আলী মনন, সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধিঃ০৮ নভেম্বর-২০২০

মাদকসেবী ছেলের অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে হাত পা বেধে পিটিয়ে হত্যা করেছে পরিবারের সদস্যরা। নীলফামারীর সৈয়দপুর শহরের গোলাহাট পুলিশ ফাঁড়ি এলাকায় ৭ নভেম্বর শনিবার রাত ৯ টায় এ ঘটনা ঘটেছে। নিহত যুবকের নাম সনু (৩০)। রাতেই পুলিশ তার বাবা ভলুকে গ্রেফতার করেছে।এলাকাবাসী জানায়, সনু পেশায় একজন অটোরিকশা চালক। সে প্রতিদিনই বাড়িতে ফেরার সময় মাদক সেবন করতো। বাড়িতে এসে বাবা মা সহ পরিবারের লোকজনকে অশ্লীল গালাগালী ও মারপিট করতো। তার অত্যাচারে পরিবারের সদস্যরা চরমভাবে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে। একমাস আগে সে তার বাবা ও মা কে মারপিট করে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছিল। তখন তারা বাধ্য হয়ে উত্তরা আবাসনে মেয়ের বাড়িতে অবস্থান করছিল। এমতাবস্থায় গত ৩ দিন আগে সনুর অন্যান্য ভাইয়েরা বাবা মা কে আবারও বাড়িতে ফিরিয়ে আনে। গত শনিবার (৭ নভেম্বর) রাতে সনু আবারও মাদক সেবন করে বাড়িতে ফিরেই বাবা মায়ের উপর চড়াও হয় এবং বেধরক মারপিট শুরু করে। এতে সনুর ভাই বোদনা, চান, সুরাজ ও তার কয়েকজন বন্ধু এগিয়ে আসে। তারা সংঘবদ্ধ হয়ে সনুকে আটক করে। কিন্তু তাতেও সে নিবৃত না হওয়ায় হাত পা বেধে সনুকে বেদম মার ডাং করে। এক পর্যায়ে সনুর বাবা ভলু ইট দিয়ে সজোরে আঘাত করে মাথা থেতলে দেয়। এতে ঘটনাস্হলেই তার মৃত্যু হয়।পরে খবর পেয়ে সৈয়দপুর থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে এবং সনুর বাবা ভোলাকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে। সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবুল হাসনাত খান জানান, সকালে লাশ ময়না তদন্তের জন্য জেলা মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। হত্যার ঘটনার সনুর স্ত্রী বাদী হয়ে সনুর বাবা ভলুসহ তিন ভাই বোদন, সুরাজ ও চান কে আসামী করে মামলা করেছে। গ্রেফতার ভলুকে দুপুরে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। অন্যদের গ্রেফতারে প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

সম্প্রতি সংবাদ