জয়পুরহাটে ট্রেনের ধাক্কায় বাসের ১২ যাত্রী নিহত

editor ৩রা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ সারাদেশ

জয়পুরহাট প্রতিনিধি : ১৯ ডিসেম্বর ২০২০,শনিবার।
জয়পুরহাট সদরের পুরানপৈল রেলগেটে রেললাইনের উপর উঠে পড়া একটি যাত্রীবাহী বাসে ট্রেনের ধাক্কায় বাসের ১২ যাত্রী নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও কমপক্ষে তিনজন। এই দুর্ঘটনায় উত্তরাঞ্চলের সঙ্গে সারাদেশের রেল যোগাযোগ বন্ধ হয়ে গেছে।

শনিবার সকাল সাতটার দিকে এই দুর্ঘটনা ঘটে। পুলিশ জানিয়েছে, দুর্ঘটনার আগে রেলক্রসিংটির গেট খোলা ছিল। গেটম্যান ঘুমিয়েছিলেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, জয়পুরহাট থেকে ছেড়ে আসা বাঁধন নামের একটি যাত্রীবাহী বাস (বগুড়া জ-১১-০০০৮) হিলি স্থলবন্দরের দিকে যাচ্ছিল। শনিবার সকাল ৭টার দিকে জয়পুরহাট সদর উপজেলার পুরানাপৈল রেলগেট অতিক্রম করার সময় গেটম্যান গেট না ফেলার কারণে বাসটি রেললাইনের উপর উঠে যায়। সেই সময় দিনাজপুরের পার্বতীপুর থেকে ছেড়ে আসা রাজশাহীগামী উত্তরা এক্সপ্রেস ট্রেন সজোরে ধাক্কা দেয়। ট্রেনটি রেললাইন ধরে ছেঁচড়িয়ে প্রায় আধা কিলোমিটার দক্ষিণ দিকে নিয়ে যায়। এ সময় বাসে থাকা ১০ জন যাত্রী ঘটনাস্থলেই মারা যান। পরে হাসপাতালে মারা যান আরও দুজন।

জয়পুরহাট জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তরিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, আহতদের উদ্ধার করে প্রথমে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে নেয়া হয়। তাদের অবস্থার অবনতি হলে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক সাইফুল ইসলাম জানান, ১০ জনের লাশ মর্গে আছে, আহত পাঁচজনকে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে স্থানান্তর করার পথে দুজনের মৃত্যু হয়।

নিহতদের মধ্যে ছয়জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তারা হলেন- বাসচালক সদর উপজেলার হারাইল গ্রামের মামুনুর রশিদ, হিচমী গ্রামের মানিকের ছেলে রমজান, পাঁচবিবি উপজেলার আটুল গ্রামের সরোয়ার হোসেন, আরিফুর রহমান রাব্বি, আক্কেলপুর উপজেলার চক বিলা গ্রামের দুদু কাজীর ছেলে সাজু মিয়া এবং নওগাঁর রানী নগর উপজেলার বিজয়কান্দি গ্রামের বাবু।

আহত তিনজনের পরিচয় জানা গেছে। তারা হলেন- পাঁচবিবি উপজেলার ফারুখ হোসেন, একই উপজেলার সিরাজুল ইসলামের ছেলে জিয়া, টাঙ্গাইলের মাটিকাটা গ্রামের শুকুর আলীর জুলহাস।

জয়পুরহাটের জেলা প্রশাসক শরীফুল ইসলাম খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন। তিনি উদ্ধারকাজ তদারকি করেন। ডিসি সাংবাদিকদের জানান, এই ঘটনা তদন্তের পর দায়ী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ঘটনাস্থলে থাকা এসপি সালাম কবির খান বলেন, ‘খবর পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থলে আসেন। আমরা রেল কর্তৃপক্ষকে অবহিত করেছি যাতে দ্রুত লাইনটি চালু করা যায়। এছাড়া এই ঘটনায় কারও গাফিলতি থাকলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

দুর্ঘটনার পর ওই রুটে রেল যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। রেলকর্মীরা যোগাযোগব্যবস্থা স্বাভাবিক করার চেষ্টা করছেন।

সম্প্রতি সংবাদ