ব্রেকিং নিউজ

মানিকগঞ্জের ১৩৫টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে ঘর

editor ১৫ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ breaking সারাদেশ

   নিজস্ব প্রতিবেদক:২১ জানুয়ারী-২০২১,বৃহস্পতিবার।
ভূমিহীন ও গৃহহীন মানুষের আবাসন সুবিধা নিশ্চিত করতে মানিকগঞ্জের ১৩৫টি পরিবার পাচ্ছে ঘর। ইতোমধ্যে জেলার সাতটি উপজেলার ১৩৫টি ঘর নির্মাণের কাজ শেষ হয়েছে। মুজিব জন্মশত বর্ষ উপলক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় এই প্রকল্প বাস্তাবায়ন করা হচ্ছে। আগামী ২৩ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এ কার্যক্রম উদ্বোধন করবেন। আজ (বৃহস্পতিবার) দুপুর ১২টায় জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত প্রেসব্রিফিং-এ তথ্য জানান জেলা প্রশাসক এস এম ফেরদৌস।

এই প্রেসব্রিফিং-এ উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক ফৌজিয়া খান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) মো. মনিরুজ্জামান, অতিরিক্ত জেরা প্রশাসক (রাজস্ব) মুছাম্মৎ শাহীনা আক্তার, মানিকগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) আলী রাজিব মাহমুদ মিঠুনসহ স্থানীয় সাংবাদিকরা।

 

জেলা প্রশাসক এস এম ফেরদৌস বলেন, ‘মুজিব জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে জেলার সাতটি উপজেলার ১৩৫টি পরিবার গৃহহীন আশ্রয়ণ প্রকল্পে দুই শতক জমিসহ সেমি পাকাঘর পাবে। ইটের দেয়াল, কংক্রিটের মেঝে এবং রঙিন টিনের ছাউনি দিয়ে তৈরি দুই হয়েছে দুই কক্ষবিশিষ্ট ঘর। আরও থাকছে একটি রান্নাঘর, টয়লেট ও সামনে বারান্দা।’

তিনি আরও জানান, প্রকৃত ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের মধ্যে ইতিমধ্যে জমির রেজিস্ট্রেশন ও খাজনা খারিজ দিয়ে ঘরের অধিকার নিশ্চিত করা হয়েছে। ঘরগুলো যাতে টেকসই এবং মানসম্মত হয় সেজন্য জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের মনিটরিং কমিটি নিয়মিত তদারকি করছেন।

মানিকগঞ্জ জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, প্রায় ১ কোটি ৭১ লাখ ৪০ হাজার টাকা ব্যয়ে (প্রত্যেকটি বাড়ি ১ লাখ ৭১ হাজার চারশ টাকা) মানিকগঞ্জের সাতটি উপজেলায় ১৩৫টি ঘর নির্মাণ করা হয়েছে। এর মধ্যে মানিকগঞ্জ সদর ১৫, সিংগাইর ১২, সাটুরিয়া ৩০, ঘিওর ২৫, শিবালয় ২১, হরিরামপুর ১২ এবং দৌলতপুর উপজেলায় ২০টি পরিবার এই ঘর পাবে।####

সম্প্রতি সংবাদ