ব্রেকিং নিউজ

জাতি হিসাবে মর্যাদার জায়গায় এসেছি: নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী

editor ৮ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ breaking সারাদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক:: : ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, শনিবার।

নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা দেশের উন্নয়নে নিরলস ভাবে কাজ করে চলেছেন। তার নেতৃত্বে জাতি হিসাবে আজ মর্যাদার জায়গায়  এসেছি।

বাংলাদেশ স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উত্তরণের জন‍্য জাতিসংঘের চূড়ান্ত স্বীকৃতি লাভ করায় প্রধানমন্ত্রীর নিকট কৃতজ্ঞতা এবং বঙ্গবন্ধুর প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে এসব কথা বলেন তিনি।

প্রতিমন্ত্রী আজ শনিবার পাবনার বেড়ায় কাজিরহাট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আরিচা-কাজিরহাট রুটে ফেরি সার্ভিস উদ্বোধন উপলক্ষ্যে  বিশাল এক সুধি সমাবেশে  প্রধান অতিথির বক্তব্রে এসব কথা গুলো বলেছেন।

বঙ্গবন্ধু ছাড়া কোনো নেতা নদী ড্রেজিংয়ের কথা ভাবেনি উল্লেখ করে খালিদ বলেন, তার সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা নির্বাচনী ইশতেহারে ১০ হাজার কিলোমিটার নৌপথ খননের ঘোষণা দিয়েছেন। নদীগুলোকে ড্রেজিং করে নাব‍্য ফিরিয়ে আনা হবে। নৌপথ খননে বঙ্গবন্ধু সাতটি ড্রেজার সংগ্রহ করেছিলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০০৮ সালের পর ৩২টি ড্রেজার সংগ্রহ করেছেন এবং ৩৫টি ড্রেজার সংগ্রহের কাজ চলমান রয়েছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্ব জাতি হিসাবে আমরা মর্যাদার জায়গায় গেছি। বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে স্বাধীনতার সুখ অনেক আগেই পেতাম। দেশরত্ন শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সমুদ্রে অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছি। নদীমাতৃক বাংলাদেশকে ধরে রাখার জন‍্য প্রধানমন্ত্রী ডেল্টা প্লান ঘোষণা করেছেন।

বিআইডব্লিউটিএ’র চেয়ারম্যান কমডোর গোলাম সাদেকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন,পাবনা-১ আসনের  সংসদ সদস্য ও সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বীরমুক্তিযোদ্ধা  শামসুল হক টুকু,মানিকগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য  ও বিসিবির পরিচালক এ এম নাঈমুর রহমান দুর্জয়, পাবনা-২ আসনের  সংসদ সদস্য আহমেদ ফিরোজ কবির,  সাবেক সংসদ সদস‍্য খন্দকার আজিজুর রহমান আরজু, জেলা পরিষদ চেয়ারম‍্যান রেজাউর রহিম লাল, বিআইডব্লিউটিসি’র চেয়ারম্যান সৈয়দ মো. তাজুল ইসলাম, পাবনার জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ ও পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মুহিবুল ইসলাম খান।

প্রধানমন্ত্রীর অঙ্গিকার বাস্তবায়নে দেশের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে যাতায়াতকারী জনসাধারণের জন্য জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর জন্মশতবার্ষিকীতে উপহারস্বরুপ আজ আরিচা-কাজিরহাট ফেরি সার্ভিস এর উদ্বোধন করা হয়।

জনগণের দুর্ভোগ লাঘবে আজ থেকে আরিচা-কাজিরহাট রুটে ফেরি সার্ভিস চালু করা হয়েছে। আরিচা-কাজিরহাট ফেরিরুটের দূরত্ব ১৪ কিলোমিটার। আরিচা থেকে কাজিরহাট যেতে সময় লাগবে এক ঘন্টা ৩০মিনিট; কাজিরহাট থেকে আরিচা আসতে সময় লাগবে এক ঘন্টা ১০মিনিট। একটি রো রো (বড়) ফেরি ও দু’টি মিডিয়াম ফেরি দিয়ে এ রুটের সার্ভিস শুরু হয়েছে। এ রুটে বড় বাসের ভাড়া ২০৬০, ট্রাকের ভাড়া ১৪০০, মাইক্রোবাসের ভাড়া ১০০০, কার (ছোট গাড়ি) এর ভাড়া ৬৮০, হোন্ডার ভাড়া ১০০ এবং যাত্রীর ভাড়া ২৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

পাবনায় নবনির্মিত বাংলাদেশ মেরিন একাডেমি পরিদর্শন

এদিকে আজ নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী পাবনার নগরবাড়ীতে নবনির্মিত বাংলাদেশ মেরিন একাডেমি পরিদর্শন করেন। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য শামসুল হক টুকু, সংসদ সদস্য আহমেদ ফিরোজ কবির, সংসদ সদস্য এ এম নাঈমুর রহমান দুর্জয়, নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব ও প্রকল্প পরিচালক রফিক আহম্মদ সিদ্দিক, বিআইডব্লিউটিসি’র চেয়ারম্যান সৈয়দ মো. তাজুল ইসলাম, বিআইডব্লিউটিএ’র চেয়ারম্যান কমডোর গোলাম সাদেক, এবং পাবনা মেরিন একাডেমির কমান্ডেন্ট ক্যাপ্টেন মো. তৌফিকুল ইসলাম।

বিশ্বে মেরিটাইম সেক্টরে নাবিকদের চাহিদা অনুধাবন করে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও দেশরত্ন শেখ হাসিনা রংপুর, বরিশাল, সিলেট এবং পাবনাতে চারটি নতুন মেরিন একাডেমী প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। এজন্য ব্যয় হচ্ছে প্রায় ৫২১ কোটি ৪৬ লাখ টাকা। প্রকল্পের মেয়াদ জুলাই ২০১২ থেকে জুন ২০২১ পর্যন্ত। নতুন চারটি মেরিন একাডেমির প্রতিটির আসন সংখ্যা ৫০ জন পুরুষ। মেরিটাইম সেক্টরে উচ্চতর ডিগ্রী অর্জনের লক্ষ্যে বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মরিটাইম ইউনিভার্সিটি’ প্রতিষ্ঠা করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শীঘ্রই রংপুর, বরিশাল, সিলেট ও পাবনা মেরিন একাডেমি আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করবেন।

সম্প্রতি সংবাদ