Logo
ব্রেকিং :
বিপিএলের ট্রফি গেল বরিশালে শপথ নিলেন নতুন ৭ প্রতিমন্ত্রী বেইলি রোডের আগুনে মৃত ৩৮ জনের পরিচয় শনাক্ত, হস্তান্তর ২৯ বেইলি রোডের আগুনে ৪৬ জনের মৃত্যু : আশঙ্কাজনক ১৯ ঘিওরে রাতের আঁধারে বিদ্যালয়ের সীমানা প্রাচীর ভেঙ্গে ফেললো দুর্বৃত্তরা রাণীশংকৈলে জাতীয় বীমা দিবস পালন উপলক্ষে র‍্যালি ও আলোচনা সভা  নগরকান্দায় কুকুরের কামড়কে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ আহত -১০ বাড়ি ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হমলা লুটপাট গোয়ালন্দে দীর্ঘ দিন পর  শিল্পকলা একাডেমির কার্যক্রম শুরু, চলছে শিক্ষার্থী ভর্তি গোয়ালন্দে পায়াকট বাংলাদেশের  সেফ হোমে ইউএনও’র মানবিক সাহায্য প্রদান নেত্রকোনায় দি হলি চাইল্ড কিন্ডার গার্টেনের ক্রীড়া প্রতিযোগিতা
নোটিসঃ
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয়

মোটরবাইকের জন্য কলেজ ছাত্র আরিফকে হত্যা করে চাচাতো ভাই। ঘাতক জাহাঙ্গীরের স্বীকারোক্তি

রিপোর্টার / ৬১ বার
আপডেট শনিবার, ২০ আগস্ট, ২০২২

নাগরপুর(টাঙ্গাইল)প্রতিনিধিঃ-২০ আগস্ট-২০২২,শনিবার।

টাঙ্গাইলের নাগরপুরে চাঞ্চল্যকর কলেজ ছাত্র আরিফ মিয়া (২১)হত্যা রহস্য পুলিশ উদঘাটন করেছে।শুধু মাত্র একটি মোটরবাইকের জন্য নিজ চাচাতো ভাইয়ের হাতে নৃশংস ভাবে প্রাণ দিতে হলো অনার্স প্রথম বর্ষের মেধাবি ছাত্র আরিফকে। এঘটনায় জড়িত থাকার সন্দেহে ভিকটিমের চাচাতো ভাই উপজেলার নঙ্গিনা বাড়ি গ্রামের দারোগা আলীর ছেলে জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতার করে। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে ঘাতক জাহাঙ্গীর হত্যার দায় স্বীকার করে। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিত্বে শুক্রবার বিকেলে মানিকগঞ্জের সাটুরিয়া উপজেলার তিল্লী ব্রীজের নিচ থেকে তার লাশ উদ্বার করা হয়। পরে লাশটি সাটুরিয়া থানায় নেয়া হয়। এদিকে লুন্ঠিত মোটরসাইকেল সহ অপর আসামী দেলদুয়ার উপজেলার দুল্লা গ্রামের মোকছেদুর রহমানের ছেলে হাবিজুর রহমান রনিকে (৩৩) পুলিশ গ্রেফতার করে। অপর দিকে ছেলে হত্যার খবর শুনে ওই পরিবারে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। স্বজনদের আহাজাড়িতে সেখান কার আকাশ বাতাস ভারি হয়ে উঠে। শোকে নির্বাক বাবা মা কোন কথাই বলতে পারছেনা। এ শোকে স্তব্ধপ্রতি বেশিরাও। শনিবার বিকেলে টাঙ্গাইলের পুলিশ সুপারের দেয়া এক প্রেস রিলিজে এসব তথ্য জানানো হয়।
নাগরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. সাজ্জাদ হোসেন জানান,নাগরপুর সদর ইউনিয়নের নঙ্গিনা বাড়ী গ্রামের সৌদি প্রবাসী মো. হোসেন মিয়ার ছেলে ও টাঙ্গাইল এম এম আলী কলেজের বিএ (অনার্স) প্রথম বর্ষের ছাত্র আরিফ(২১)গত ৮ আগস্ট দুপুর সাড়ে বারোটার দিকে চাচাতো জাহাঙ্গীর ফুসলিয়ে আরিফকে তার মোটরবাইক (পালসারডাবলডিক্স) নিয়ে বাড়ী থেকে টাঙ্গাইলের উদ্দেশ্য বের হয়ে যায়। ওই দিন বিকেলে জাঙ্গাগীর একা বাড়ী ফিরে আসে।বাড়ীর লোক জন জাঙ্গাগীরের কাছে আরিফের কথা জানাতে চাইলে বিভিন্ন তাল বাহানা করে একেক সময় একেক তথ্য দিয়ে পরিবারকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করে।দুই দিন পেরিয়ে গেলেও আরিফের কোন সন্ধান না পেয়ে ১০ আগস্ট নাগরপুর থানায় একটি সাধারন ডাইরী করা হয়।পরে পুলিশ গতকাল শুক্রবার জাহাঙ্গীরকে আটক করে। সে একই গ্রামের দারোগআলীর ছেলে। পুলিশের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে সে আরিফকে ওই দিনই হত্যা করে তিল্লী ব্রীজের নিচে বস্তায় ভরে ফেলে যায় এবংতার মোটরসাইকেলটি হাফিজুর রহমান রনির কাছে বিক্রি করে। ঘাতক জাহাঙ্গীরের তথ্য অনুযায়ী নাগরপুর থানা পুলিশ ও ডিবি (দক্ষিণ) টাঙ্গাইলের একটি বিশেষ টিম অভিযান চালিয়ে কালিহাতি থানার রতনগঞ্জ বাজার গামী পাকা রাস্তার পাশ থেকে মোটরসাইকেটি উদ্ধার এবংহাফিজুরকে গ্রেফতার করে।অভিযুক্ত জাহাঙ্গীর হত্যার সাথে জড়িত থাকার বিষয়ে নিজের দোষ স্বীকার করে ফৌ: কা: বি: ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তি মুলক জবানবন্দি দেন এবংআদালতের মাধ্যমে দুই আসামীকে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে বলে সংশ্লিষ্টসুত্রে জানা গেছে।


এ জাতীয় আরো খবর
Tech Support By Nagorikit.Com