Logo
ব্রেকিং :
বঙ্গবন্ধু শুরুর সময়, একটি ডলারও ছিল না- মানিকগঞ্জে গৃহায়ন মন্ত্রী রাণীশংকৈলে প্রাণীসম্পদ প্রদর্শনীর উদ্বোধন উপলক্ষে আলোচনা সভা  নবাবগঞ্জে প্রাণী সম্পদ প্রদর্শনী-২০২৪ উদ্বোধনী /সমাপনী অনুষ্ঠান সমাজসেবার বিশেষ অবদানে সম্মাননা স্মারক পেলেন দৌলতদিয়ার ইউপি চেয়ারম্যান রহমান মন্ডল ভিক্ষা ছেড়ে  বিকল্প কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে বিশেষ চাহিদা সম্পর্ণ রতনদের পাশে প্রশাসন। টাঙ্গাইল শহরে থমথমে অবস্থা ॥ ককটেল বিস্ফোরণ আওয়ামীলীগের দুই গ্রুপের পাল্টাপাল্টি সমাবেশ পুলিশি বাঁধায় পন্ড  দৌলতপুরে প্রাণি সম্পদ প্রদর্শণী নাগরপুরে প্রাণীসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনী  অনুষ্ঠিত  ঘুমন্ত স্বামীর গোপণাঙ্গ কেটে সন্তান রেখেই পালালেন স্ত্রী ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস ২০২৪ উদযাপন উপলক্ষে র‍্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত
নোটিসঃ
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয়

সিংগাইরে চাাঁদাবাজির মামলা দেয়ায় আসামীদের ভয়ে বাদী ঘরছাড়া, মামলা তুলে নিতে হুমকি

মুহ. মিজানুর রহমান বাদল / ১২৪ বার
আপডেট শুক্রবার, ১৪ জুলাই, ২০২৩

মুহ. মিজানুর রহমান বাদল,স্টাফ রিপোর্টার:১৪ জুলাই-২০২৩,শুক্রবার।
মানিকগঞ্জের সিংগাইর উপজেলার চান্দহর ইউনিয়নের সিরাজপুর আশ্রয়ণ প্রকল্পের রিক্সা মেকানিক আনোয়ার হোসেন (৪১) চাঁদাবাজির মামলা করে আসামীদের ভয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন। মামলার প্রধান আসামি মিলনসহ অন্যরা মামলা তুলে নিতে হুমকি দিচ্ছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। মামলার বাদী আনোয়ার হোসেন উপজেলার চান্দহর ইউনিয়নের আটিপাড়া গ্রামের মৃত ছোবান মোল্লার পুত্র।সে বর্তমানে মুজিবর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া আশ্রয়ণ প্রকল্পে জমিসহ ঘরের বাসিন্দা।
অন্যদিকে, মামলার আসামীরা হচ্ছেন- একই গ্রামের মো. হাকিম আলীর ছেলে মিলন (৩০), মৃত হজরত আলীর ছেলে আবুল কালাম (৪৫), মৃত হোসেন আলীর ছেলে আব্দুল হাকিম (৫৫), মৃত আফাজুদ্দিনের ছেলে নাজিম (২৮) ও নান্নুর ছেলে মেহেদীসহ (২৭) আরো অজ্ঞাত ৪-৫জন।
ভুক্তভোগী আনোয়ার হোসেন ও সিরাজপুর আশ্রয়ণ প্রকল্পের বাসিন্দা ও এলাকাবাসী জানান, মামলার বাদী ১১২ নং ঘরে স্ত্রী, কন্যা ও শিশু পুত্র নিয়ে বসবাস করেন। ওই গ্রামের মিলনসহ অন্যদের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি মামলা করার পর থেকে আনোয়ার হোসেন গত ১৫ দিন ধরে পরিবারের লোকজন নিয়ে অন্যত্র বসবাস করছেন । তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানটিও তালা লাগিয়ে বন্ধ কর দেয়া হয়েছে। তারা আরো জানান, জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে আনোয়ার হোসেনের সাথে মিলনের দীর্ঘ দিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে ইতিপ‚র্বে আনোয়ার থানায় লিখিত অভিযোগ করেও ফল পাননি। স¤প্রতি তার সিরাজপুর বাজারে ‘ভাই-বোন অটো হাউজ’ নামের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে তালা লাগিয়ে দেন মিলন ও তার লোকজন। এতে আনোয়ার বাদী হয়ে গত ২১ জুন মানিকগঞ্জ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট-১ এর আদালতে চাঁদাবাজির অভিযোগে মামলা দায়ের করেন। শুনানী শেষে মামলাটি আদালত পুলিশ ব্যুরো ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্ত দেন।
এদিকে, সরেজমিন গিয়ে সিরাজপুর আশ্রয়ণ প্রকল্পে আনোয়ার হোসেনের পরিবারকে পাওয়া না গেলেও কথা হয় তার বৃদ্ধা মা মজিরনের সাথে। ছেলের পালিয়ে থাকার বর্ণনার সময় চোখে-মুখে আতংক নিয়ে স্ত্রী সন্তান সাথে করে এ প্রতিবেদকের সামনে হাজির হন আনোয়ার হোসেন । তিনি প্রশাসনের কাছে তার পরিবার-পরিজনের নিরাপত্তা দাবী করেন।
স্থানীয় বাসিন্দা সিরাজপুর বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক মো আজাহার সিদ্দিক বাদশা, চান্দহর ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি মোকশেদ মাতবর, শাহিন, রুবেল ও ফয়সালসহ অনেকে আনোয়ার হোসেনের পালিয়ে থাকার কথা স্বীকার করেন।
এ মামলার প্রধান আসামি মিলন বলেন, জমি কেনা বাবদ আমি আনোয়ারের কাছে ১ লাখ ২০ হাজার টাকা পাই। যার প্রমাণ স্বরুপ আমার কাছে স্ট্যাম্প রয়েছে। জমি দলিল না করে দেয়ায় আমি স্থানীয় শান্তিপুর-বাঘুলি পুলিশ ফাঁড়িতে অভিযোগ করলে আনোয়ার আমাদের নামে মিথ্যা মামলা দায়ের করেন। আনোয়ারের দোকান ঘর তালা দেয়ার কথা অস্বীকার করেন তিনি।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেষ্টিগেশন (পিবিআই) এস আই আব্দুর রাজ্জাক বলেন, মামলার কপি হাতে পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে বাদীকে তার বাড়িতে পায়নি। তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কিছুই বলা যাচ্ছে না।
এ ব্যাপারে সিংগাইর থানার ওসি সৈয়দ মিজানুর ইসলাম বলেন, মামলা তুলে নিতে বা হুমকির বিষয়ে কেউ অভিযোগ দিতে আসেনি। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

 

 

 

 


এ জাতীয় আরো খবর
Tech Support By Nagorikit.Com