Logo
ব্রেকিং :
দৌলতপুরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন পালিত ভূঞাপুরে পুত্রবধূর বিরুদ্ধে শ্বাশুরিকে হত্যার অভিযোগ সরিষাবাড়ীতে শেখ হাসিনার জন্মদিনে নতুন কাপড় পেলো ২ শতাধিক দুঃস্থ ও এতিম শিশু ভূঞাপুরে অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন নাগরপুরে উপজেলা আ.লীগ আয়োজনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র ৭৬ তম জন্মদিন পালিত টাঙ্গাইলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন পালিত দৌলতদিয়া মডেল হাই স্কুলে অভিভাবক  সভা অনুষ্ঠিত  ঢাবিতে ছাত্রদলের উপর হামলার প্রতিবাদে সৈয়দপুরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সভা ঘিওরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন পালিত নেত্রকোনায় তথ্য অধিকার দিবসের আলোচনা সভা
নোটিসঃ
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয়

পাকিস্তানে মানসিক নির্যাতন করা হয়েছে অভিনন্দনকে: ভারত

রিপোর্টার / ১৯ বার
আপডেট রবিবার, ৩ মার্চ, ২০১৯
This handout photograph released by Pakistan's Inter Services Public Relations (ISPR) on February 27, 2019, shows captured Indian pilot looking on as holding a cup of tea in the custody of Pakistani forces in an undisclosed location. - Pakistan's state media on February 27 published a video showing an Indian fighter pilot who was captured after his jet was shot down when it entered Pakistani airspace in Kashmir. (Photo by HANDOUT / ISPR / AFP) / XGTY / -----EDITORS NOTE---- RESTRICTED TO EDITORIAL USE - MANDATORY CREDIT "AFP PHOTO / INTER SERVICES PUBLIC RELATIONS" ---- NO MARKETING NO ADVERTISING CAMPAIGNS - DISTRIBUTED AS A SERVICE TO CLIENTS

কালের কাগজ  ডেস্ক ০৩ মার্চ ২০১৯,রবিবার।

পাকিস্তানের হেফাজতে ৫৮ ঘণ্টা থাকা অবস্থায় ভারতীয় পাইলট অভিনন্দন বর্তমানের ওপর শারীরিক অত্যাচার না হলেও মানসিক অত্যাচার করা হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে দেশটির পক্ষ থেকে। খবর এনডিটিভি।

শনিবার কেন্দ্রীয় সরকারের সূত্রকে উদ্ধৃত করে সংবাদসংস্থা এএনআই জানায়, অভিনন্দন বর্তমানের ওপর ‘মানসিক নির্যাতন’ চালিয়েছিল পাকিস্তান।

ভারতীয় বিমান বাহিনীর এ পাইলটকে বুধবার পাকিস্তানি সেনা সদস্যরা নিজেদের হেফাজতে নেয়। কাশ্মীর অঞ্চলের নিয়ন্ত্রণরেখার ওপরে দুই দেশের আকাশে সামরিক মহড়ার সময় অভিনন্দন বর্তমানের চালানো মিগ-২১ বিমানটি ধ্বংস হয়ে যায়।

এর পর প্যারাশুটে করে তিনি পাকিস্তানে নামেন। পরে ক্ষুব্ধ স্থানীয় বাসিন্দারা আক্রমণ করলে তাদের পিছু হঠানোর জন্য হাওয়ায় গুলি চালান। তারপর ঝাঁপ দেন কাছের একটি পুকুরে। এ সময় তার সঙ্গে থাকা সমস্ত তথ্যপ্রমাণ খেয়ে নষ্ট করে দেন বলে দাবি করা হয়।
পরে শান্তির উদ্দেশ্যে পাকিস্তান ওয়াঘা সীমান্ত দিয়ে ভারতের কাছে তাকে হস্তান্তর করে। পরে তাকে মেডিক্যাল চেকআপের জন্য হাসপাতালে নেয়া হয়। সেই হাসপাতালেই তাকে দেখতে আসেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারামন।

সংবাদসংস্থা পিটিআই জানিয়েছে, পাকিস্তানের হেফাজতে কাটানো ওই ৫৮ ঘণ্টার অনেক কথা প্রতিরক্ষামন্ত্রীকে জানান অভিনন্দন বর্তমান।


এ জাতীয় আরো খবর
ThemeCreated By ThemesDealer.Com