Logo
ব্রেকিং :
মানিকগঞ্জ জেলা প্রেসক্লাবের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন সভাপতি আমিনুল, সাধারণ সম্পাদক নুরুজ্জামান ভোট চোররা ভোট চুরি করতেই জানে: শেখ হাসিনা নেত্রকোনায় মহিলা পরিষদের সাংবাদিক সম্মেলন নগরকান্দায় কৃষকের মাঝে পেঁয়াজের বীজ বিতরণ  যশোরে প্রধানমন্ত্রীর জনসভা হতে চুরি যাওয়া মূল্যবান ১২ টি মোবাইল ফোন গোয়ালন্দে উদ্ধার  সৈয়দপুরে ভোর রাতে ৫ দোকানের  ২০ লাখ টাকার মালামাল পুড়ে ছাই সৈয়দপুরে বর্ণাঢ্য আয়োজনে উদ্বোধন হলো কাউন্সিলর গোল্ডকাপ ফুটবল টূর্ণামেন্ট  আগামী জুনে শুভ উদ্বোধন করা হবে  সিরাজগঞ্জ বিসিক শিল্প পার্ক  ……… শিল্প মন্ত্রী নূরুল মজিদ নাগরপুরে খেজুর রস আহরণে ব্যস্ত গাছিরা টাঙ্গাইলে আশ্রয়ণের ঘরে ভুতুড়ে বিদ্যুৎ বিল, দিশেহারা ৪০ পরিবার
নোটিসঃ
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয়

শপথ নিতে ইচ্ছুক মির্জা ফখরুল, সংখ্যাগরিষ্ঠ মতামত শপথের পক্ষে!

রিপোর্টার / ১৩ বার
আপডেট বৃহস্পতিবার, ২১ মার্চ, ২০১৯

কালের কাগজ ডেস্ক:২০ মার্চ-২০১৯,বৃহস্পতিবার।

এবার শপথ নেয়ার ইচ্ছা পোষণ করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বেগম জিয়ার মুক্তির ক্ষীণ সম্ভাবনাকে জাগিয়ে তুলতে মুক্তির জন্য সংসদে গিয়ে কথা বলতে চান তিনি।
২০ মার্চ রাজধানীর একটি বৈঠকে দলের একাধিক নেতাকর্মীর সঙ্গে আলাপকালে তিনি সংসদ গিয়ে সোচ্চার হওয়ার জন্য ইচ্ছা প্রকাশ করেন।

বৈঠক সূত্র জানায়, শপথ নেওয়া হলে সংসদে গিয়ে বেগম খালেদা জিয়ার অসুস্থতা, মুক্তি এবং অন্যান্য বিষয় নিয়ে কথা বলা সহজতর হবে বলে মনে করেন মির্জা ফখরুল। মির্জা ফখরুলের এ ইচ্ছা একেবারেই নতুন তা নয়, অনেকদিন ধরেই মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর শপথ নিতে আগ্রহী হলেও হাইকমান্ডের চাপে তা প্রকাশ্যে আনেননি। অবশ্য কেউ শপথ নিয়ে সরাসরি ইতিবাচক মত না দিলেও অনেক নেতাই এর পক্ষে বলেও জানা গেছে।

এদিকে মির্জা ফখরুলের এমন সিদ্ধান্তে ক্ষোভ প্রকাশ করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, আমি আগেই বলেছিলাম যে, বিএনপির অনেক নেতাই উড়াল দিতে চায়। আমার কাছে এমন তথ্যও যে, বিএনপির বেশ কয়েকজন নির্বাচিত নেতা সরকারের সঙ্গে গোপনে যোগাযোগ করছেন এবং শপথ নেওয়ার পাঁয়তারা করছেন। তাদের জেনে রাখা উচিত যে, শপথ নিলে বিএনপিতে তাদের কোন অবস্থান থাকবে না।

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় শপথের বিরোধিতা করলেও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমেদ বলেন, মির্জা ফখরুল সাহেব শপথ নেবেন সে কথা তো বলেননি। বরং তিনি শপথ নিলে দলের যেসব সুবিধা হবে তা নিয়ে মতামত পোষণ করেছেন। দলের অনেক নেতাই ফখরুল সাহেবের সঙ্গে একমত। আমি নিজেও তার মতকে সমর্থন করি। সুতরাং বিষয়টি ভালোই হবে বলে মনে হচ্ছে। এ নিয়ে অভিমান-ক্ষোভের কোনো মানে হয় না। এক ঢিলে দুই পাখির মারার মতো ব্যাপারটি। এতে সংসদ ও রাজপথে বিএনপির বিচরণ নিশ্চিত হবে।

প্রসঙ্গত, বিগত বেশ কিছুদিন ধরে মির্জা ফখরুলসহ নির্বাচিত ছয় এমপির শপথের গুঞ্জন নিয়ে বিএনপির রাজনীতিতে তোলপাড় চলছে। যদিও বিএনপিতে সিদ্ধান্ত হয়েছিলো, তারা কেউই শপথ নেবেন না এবং সংসদে যাবেন না। কিন্তু বর্তমান সময়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটিতে মির্জা ফখরুলের মতামতই সংখ্যাগরিষ্ঠ বলে একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে।


এ জাতীয় আরো খবর
Theme Created By ThemesDealer.Com