Logo
ব্রেকিং :
নাগরপুরে খেজুর রস আহরণে ব্যস্ত গাছিরা টাঙ্গাইলে আশ্রয়ণের ঘরে ভুতুড়ে বিদ্যুৎ বিল, দিশেহারা ৪০ পরিবার ধানের বাজারমূল্যে খুশি কৃষক, পরিবারে উৎসব জ্বলছে আগুন পুড়ছে কাঠ, ইটের ভাটায় সর্বনাশ নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বিশ্ব মানবাধিকার দিবস পালন উপলক্ষে টাঙ্গাইলে মহিলা পরিষদের সংবাদ সম্মেলন নেত্রকোনায় ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল নাগরপুরে আওয়ামীলীগ নেতা হিমু’র উদ্যোগে বড় পর্দায় বিশ্বকাপ ফুটবল দেখার ব‍্যবস্থা গোয়ালন্দ উপজেলা কৃষকলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত  উন্নয়নের জন্য নৌকায় ভোট চাইলেন প্রধানমন্ত্রী নদী ভাঙ্গন রোধে দুই হাজার কোটি টাকার প্রকল্প একনেকে পাশ হলে কাজ শুরু হবে– -দূর্জয়
নোটিসঃ
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয়

মানিকগঞ্জে টাকার অভাবে চিকিৎসা নিতে না পারায় মরতে বসেছে অগ্নিদগ্ধ গৃহবধু

রিপোর্টার / ১৬ বার
আপডেট বৃহস্পতিবার, ১৪ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক:১৪ ফেব্রুয়ারী ,বৃহস্পতিবার।
অর্থের অভাবে চিকিৎসাসেবা নিতে না পারায় মৃত্যু যন্ত্রনায় কাতরাচ্ছে গৃহবধু সালমা বেগম। অগ্নিদগ্ধ হয়ে শরীরের ৩০ শতাংশ পুড়ে গেছে তারা। সে মানিকগঞ্জের ঘিওর উপজেলার গোলাপনগর গ্রামের কৃষক রুবেল মিয়ার স্ত্রী।
জানা গেছে, গত ৭ ফেব্রুয়ারী সকালে নিজ বাড়িতে মাটির চুলায় রান্না করতে গিয়ে অসাবধানতার ফলে তার গায়ের কাপড়ে আগুন লেগে যায়। তাৎনিক পরিবারের লোকজন তাকে গুরুত্বর অবস্থায় ঘিওর উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করে । তার অবস্থা অবনতি দেখে হলে সেখান থেকে তাকে মানিকগঞ্জ ২৫০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করেন। মানিকগঞ্জ হাসপাতাল থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সালামকে ভর্তি করা ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে । সেখানকার চিকিৎসকরা জানায়, সালমার শরীরের নিচের অংশের ৩০ ভাগ পুড়ে গেছে। তাকে দীর্ঘদিন চিকিৎসায় থাকতে হবে। তবে চিকিৎসা খরচ অনেক বেশী হবে। টানা ৫ দিন মেডিকেল কলেজের বান ইউনিটে চিকিৎসা নিতে তার ব্যয় হয় প্রায় ৮০ হাজার টাকা । এ অবস্থায় চিকিৎসকরা বলেন, সালমাকে সুুস্থ করতে হলে আরও উন্নত চিকিৎসা প্রয়োজন । কিন্ত দরিদ্র স্বামীর পে তার চিকিৎসার ব্যয়ভার নির্বাহ করা সম্ভব হচ্ছে না । বাধ্য হয়ে টাকার অভাবে চিকিৎসা নিতে না পারায় বুধবার (১৩ ফেব্রুয়ারী) বিকেলে ঢাকা বান ইউনিট থেকে সালমাকে বাড়িতে ফিরিয়ে আনা হয় ।
সালমার স্বামী দরিদ্র কৃষক রুবেল মিয়া জানায়, তার নিজের কোন জমিজমা নেই। অন্যের জমিতে ফসল ফলিয়ে তিনি দিনাতিপাত করেন। তাদের সংসারের দুই বছরের একটি মেয়ে রয়েছে। এদিকে সালমা তিন মাসের অন্তস্বত্তা। এমতাবস্থায় তিনি নিরুপায় হয়ে বিত্তবানদের সাহায্য প্রার্থনা করেছেন।
বিছানায় মৃর্তু যন্ত্রনায় কাতরানো সালমা জানায়, তার বাবা-মা মারা গেছেন বহু বছর আগে। চাচার কাছে মানুষ হয়েছে সে। চাচাই তাকে দরিদ্র কৃষকের কাছে বিয়ে দেয়। তার আত্মীয়-স্বজন বলতে তেমন কেউ নেই। টাকার অভাবে সে চিকিৎসা নিতে পারছে না। এমতাবস্থায় সালমা স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও মানিকগঞ্জের এমপি জাহিদ মালেক স্বপন, মমতাজ বেগম ও নাঈমুর রহমান দূর্জয়ের সাহায্য কামনা করেছেন।
এলাকাবাসী বলেন, যেহেতু স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক মানিকগঞ্জের বাসিন্দা। সেহেতু স্বাস্থ্য মন্ত্রী বলে দিলে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ণ ইউনিটে বিনা খরচে তার চিকিৎসার ব্যবস্থা করা সম্ভব হবে।
কালের কাগজ/প্রতিবেদক/জা.উ.ভি


এ জাতীয় আরো খবর
Theme Created By ThemesDealer.Com