Logo
ব্রেকিং :
আগামীকাল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন নাগরপুরে সহবতপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত সরিষাবাড়ীতে পরকিয়ার জেরে স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন টাঙ্গাইল পাসপোর্ট অফিসে বিশেষ সংকেতে চলে ঘুষ বানিজ্য টাঙ্গাইল পৌর ভবনের সামনে স্থাপিত জাতির জনকের ভাস্কর্য ভেঙ্গে ফেলার এক বছরেও তা প্রতিস্থাপন হয়নি মির্জাপুরে ফাঁড়ির হাজতখানায় আটক ব্যক্তির মৃত্যু টাঙ্গাইলে ২৪ জাতের কুকুরের খামার, আমদানির চেয়ে ৫০ ভাগ সাশ্রয় মানিকগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনায় ধারালো অস্ত্রের কোপের শিকার যুবক সৈয়দপুরে বেশি দামে চিনি বিক্রি করায়   দুই দোকানে ৩৫ হাজার টাকা জরিমানা ঘিওরে ব্র্যাকের উদ্যোগে বাল্য বিয়ে প্রতিরোধ বিষয়ক সভা অনুষ্ঠিত
নোটিসঃ
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয়

সরকার উৎখাতের লক্ষ্যে বিডিআর বিদ্রোহ আলোচনা সভায় ড. হাছান মাহমুদ

রিপোর্টার / ৫ বার
আপডেট সোমবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক:২৫ ফেব্রুয়ারি-২০১৯,সোমবার।

তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, সরকার উৎখাতের লক্ষ্যেই বিডিআর বিদ্রোহ ঘটানো হয়েছিল। গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা উপ-কমিটির আয়োজনে রাজধানীর শিল্পকলা একাডেমির চিত্রশালায় দুদিনব্যাপী আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের উদ্বোধনী পর্বে তিনি এ কথা বলেন।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর কাছে বাঙালি জাতির ঋণ শোধ হওয়ার নয়। বঙ্গবন্ধু না হলে স্বাধীনতা অর্জিত হতো না। ১৯৬৬ সালের আওয়ামী লীগ সম্মেলনে তিনি আমার সোনার বাংলা গানটির সূচনা করেন, যা আজ আমাদের জাতীয় সংগীত। স্বাধীনতা অর্জনের বহু আগে থেকে তিনি স্বাধীনতার স্বপ্ন দেখেছেন। অসীম দূরদৃষ্টিসম্পন্ন বঙ্গবন্ধুর সুব্যবস্থাপনার কারণেই আজ আমরা সমুদ্রের নিচে আরেক বাংলাদেশ জয় করেছি, ছিটমহলের সবচেয়ে সুন্দর সমাধান পেয়েছি।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম। অনুষ্ঠানের প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী ও বঙ্গবন্ধুর একান্ত সহচর তোফায়েল আহমেদ।

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ ২০০৯ সালের এদিনে রাজধানীর পিলখানায় তৎকালীন বিডিআর সদর দপ্তরের বেদনাময় স্মৃতির কথা উল্লেখ করে বলেন, সরকার উৎখাতের লক্ষ্যেই বিডিআর বিদ্রোহ ঘটানো হয়েছিল। সেই সঙ্গে মার্কিন রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে বিএনপির সাক্ষাতের বিষয়ে তিনি বলেন, ক্ষমতার মালিক জনগণ, বিদেশিদের কাছে ধরনা দিয়ে লাভ নেই।

অনুষ্ঠানে সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেন, প্রতি বছর ২৩ ফেব্রুয়ারি যখন ফিরে আসে, স্মৃতির পাতায় অনেক কথা ভেসে ওঠে। আমার জীবনের শ্রেষ্ঠ এই দিনটিকে গভীরভাবে স্মরণ করি। ১৯৬৯-এর ২৩ ফেব্রুয়ারির পর থেকে বঙ্গবন্ধুর একান্ত সান্নিধ্য পেয়েছি। এবারে ‘বঙ্গবন্ধু’ উপাধি প্রদানের ৫০ বছর। দেখতে দেখতে অর্ধশত বছর পেরিয়ে গেল। প্রিয় নেতা তার যৌবনের ১৩টি মূল্যবান বছর পাকিস্তানের কারাগারে কাটিয়েছেন। কারাগারের অন্ধকার প্রকোষ্ঠে বসে যে নেতা প্রিয় মাতৃভূমি বাংলার ছবি হৃদয় দিয়ে এঁকেছেন, ফাঁসির মঞ্চে দাঁড়িয়ে হাসিমুখে মৃত্যুকে আলিঙ্গন করেছেন, সেই নেতাকে সেদিন জাতির পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞচিত্তে ‘বঙ্গবন্ধু’ উপাধিতে ভূষিত করা হয়। তিনি শুধু বাঙালি জাতিরই মহান নেতা ছিলেন না, বিশ্বের নিপীড়িত মানুষের অন্যতম শ্রেষ্ঠ নেতা ছিলেন।

প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম বলেন, বাঙালি জাতিসত্তার পরিচয়ের রূপকারই জাতির পিতা সর্বকালের শ্রেষ্ঠ বাঙালি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। তিনি অমর। এ সময় তিনি এ সফল আয়োজনের প্রচার উপ-কমিটিকে ধন্যবাদ জানান।

ঢাকা দক্ষিণ আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, আওয়ামী লীগ প্রচার উপ-কমিটির যুগ্ম সম্পাদক আমিন উদ্দিন আমিন প্রমুখ সভায় বক্তব্য রাখেন। এরপর দুদিনব্যাপী বঙ্গবন্ধুর ওপর ৬০০ আলোকচিত্র প্রদর্শনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন অতিথিবৃন্দ।

কালের কাগজ/প্রতিবেদক/জা.উ.ভি


এ জাতীয় আরো খবর
ThemeCreated By ThemesDealer.Com