Logo
ব্রেকিং :
মানিকগঞ্জ জেলা প্রেসক্লাবের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন সভাপতি আমিনুল, সাধারণ সম্পাদক নুরুজ্জামান ভোট চোররা ভোট চুরি করতেই জানে: শেখ হাসিনা নেত্রকোনায় মহিলা পরিষদের সাংবাদিক সম্মেলন নগরকান্দায় কৃষকের মাঝে পেঁয়াজের বীজ বিতরণ  যশোরে প্রধানমন্ত্রীর জনসভা হতে চুরি যাওয়া মূল্যবান ১২ টি মোবাইল ফোন গোয়ালন্দে উদ্ধার  সৈয়দপুরে ভোর রাতে ৫ দোকানের  ২০ লাখ টাকার মালামাল পুড়ে ছাই সৈয়দপুরে বর্ণাঢ্য আয়োজনে উদ্বোধন হলো কাউন্সিলর গোল্ডকাপ ফুটবল টূর্ণামেন্ট  আগামী জুনে শুভ উদ্বোধন করা হবে  সিরাজগঞ্জ বিসিক শিল্প পার্ক  ……… শিল্প মন্ত্রী নূরুল মজিদ নাগরপুরে খেজুর রস আহরণে ব্যস্ত গাছিরা টাঙ্গাইলে আশ্রয়ণের ঘরে ভুতুড়ে বিদ্যুৎ বিল, দিশেহারা ৪০ পরিবার
নোটিসঃ
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয়

বহিষ্কার হচ্ছেন সুলতান-মুকাব্বির!

রিপোর্টার / ১৯ বার
আপডেট শনিবার, ২ মার্চ, ২০১৯

কালের কাগজ ডেস্ক: ০২ মার্চ ২০১৯,শনিবার।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শরীক দল গণফোরাম থেকে নির্বাচিত দুই সংসদ সদস্য সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ এবং মোকাব্বির খান শপথ নিচ্ছেন।

আগামী ৭ মার্চ তারা শপথ নিবেন বলে শনিবার যুগান্তরকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তারা নিজেই। এ বিষয়ে ব্যবস্থা নিতে ইতিমধ্যে স্পিকার বরাবর ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য শনিবার চিঠি দিয়েছেন তারা।

তাদের এমন সিদ্ধান্ত নিয়ে গণফোরাম ও ঐক্যফ্রন্টে চলছে নানা আলোচনা-সমালোচনা। তারা শপথ নিলে কী ব্যবস্থা নেবে গণফোরাম এ নিয়ে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা। তারা শপথ নিলে গণফোরামের সঙ্গে ঐক্যফ্রন্টের বাধতে পারে অনৈক্যের সুর।

এর আগে একই ইস্যুতে এই জোটে দেখা দিয়েছিল টানাপোড়েন। পরবর্তী সময়ে ঐক্যফ্রন্টের স্টিয়ারিং কমিটির বৈঠকে শপথ না নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়। কিন্তু এবার ঐক্যফ্রন্টের দুই এমপি নিজেরাই সরাসরি শপথ নেয়ার পক্ষে শক্ত অবস্থান নিয়েছেন। তাদের এই দৃঢ় অবস্থানে ফ্রন্টের ঐক্য নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে নানা শঙ্কা।

যদিও জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সিদ্ধান্ত রয়েছে, একাদশ সংসদ নির্বাচনে জোট থেকে নির্বাচিত ৮ জনের কেউই শপথ গ্রহণ করবেন না। জোটের সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে শপথ গ্রহণ করলে তাদেরকে দল থেকে বহিষ্কার করার চিন্তা রয়েছে গণফোরামের।

সুলতান-মুকাব্বির শপথ নিলে কোনো বহিষ্কার হবেন কি না এমন প্রশ্নের জবাবে গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফা মহসিন মন্টু যুগান্তরকে বলেন, ‘আমরা (জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট) এখন পর্যন্ত শপথ না নেওয়ার সিদ্ধান্তে বহাল আছি। এখন কেউ সেই সিদ্ধান্ত অমান্য করে শপথ গ্রহণ করলে তাদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। দলের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী যদি বহিষ্কারের নিয়ম হয়, তাহলে তাদেরকে বহিষ্কার করা হবে।’

এদিকে শপথের সিদ্ধান্তর নেয়ার বিষয়ে সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ শনিবার  বলেন, ‘আমি শপথ নেব। শত প্রতিকূলতার মধ্যে জনগণ আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছেন, তাদের ভোটের সেই মর্যাদা দিতেই আমি শপথ নেব’।

তিনি বলেন, ‘আমি জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার প্রতিনিধি হিসেবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে যোগ দিয়েছি। কিন্তু নির্বাচন করতে হলে নিবন্ধিত দলের সদস্য হতে হয়, তাই আমি গণফোরামের সদস্য হিসেবে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছি। এখন তারা যদি আমাকে দল থেকে বহিষ্কার করে, সেটিকে আমি কেয়ার করি না। তাদের যা সিদ্ধান্ত নেয়ার, নিতে পারে।’

অন্যদিকে মোকাব্বির খান শনিবার  বলেন, ‘আমি দলের (গণফোরামর) সিদ্ধান্ত নিয়েই মার্চের প্রথম সপ্তাহে শপথ নেব। দলের সভাপতি ড. কামাল হোসেনের সঙ্গে কথা বলেই শপথ নিতে যাচ্ছি। তিনি শপথের বিষয়ে ইতিবাচক।’

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ মৌলভীবাজার-২ আসনে ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে নির্বাচিত হন। আর মোকাব্বির খান গণফোরামের দলীয় প্রতীক উদীয়মান সূর্য নিয়ে সিলেট-২ আসন থেকে নির্বাচিত হয়েছেন। তারা দু’জনই ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন গণফোরামের স্থায়ী কমিটির সদস্য।

কালের কাগজ/প্রতিবেদক/জা.উ.ভি


এ জাতীয় আরো খবর
Theme Created By ThemesDealer.Com